ঐক্যফ্রন্ট থেকে ড. কামলকে সরিয়ে দিতে বললেন বিএনপির মেজর হাফিজ!

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পূর্বে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দল ও আরও কিছু দল নিয়ে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট গঠিত হয়। সেই জাতীয় ঐক্যফ্রন্টকে নেতৃত্ব দিচ্ছে রাজনীতিতে সজ্জন ব্যক্তি হিসেবে পরিচিত গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন। তবে তার কর্মদক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেলন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অবসরপ্রাপ্ত মেজর হাফিজ উদ্দিন বীরবিক্রম। তিনি বলেন, ড. কামাল হোসেন ভাল মানুষ কিন্তু উনি বয়সের ভারে এখন রাজনৈতিক দায়িত্ব যথাযথ ভাবে পালন করতে পারবেন না। অতএব উনার আর এই পদে থাকার দরকার নেই। বিএনপির অনেক যোগ্য লোক আছে যারা জাতীয় ঐক্যফ্রন্টকে নেতৃত্ব দিতে পারবে বলে জানান এই নেতা।

হাফিজ বলেন, ঐক্যফ্রন্টের নেতৃত্ব থেকে ড. কামাল হোসেনকে সরিয়ে, বিএনপির কাউকে দায়িত্ব দেয়া উচিত এবং দলের মাঝে যে সমস্যা রয়েছে তা ঠিকঠাক মত খুঁজে বের করা উচিত। বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটকে আস্থায় এনে সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনের পরিকল্পনা ঠিক করতে হবে। বিশেষ করে নির্বাচনে অনেক সাধারণ মানুষকে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে। এতে ২০ দলীয় জোটের মাঝে মান অভিমান থাকতে পারে তা যত তাড়াতাড়ি সম্ভব দূর করা উচিত।

মেজর হাফিজের কড়া বক্তব্য প্রসঙ্গে ঐক্যফ্রন্টের কোন নেতা মন্তব্য করতে রাজি হননি। তবে গণফোরামের কার্যকরি সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধূরী বলেছেন, ঐক্যফ্রন্ট গঠিত হয়েছে সুনির্দিষ্ট লক্ষ্যের ভিত্তিতে। যেখানে রাষ্ট্রের মালিক হবে জনগণ এবং সেই মালিকানা জনগণের কাছে ফিরিয়ে দেয়াই ছিল এই জোটের লক্ষ্য। এখানে কারও ব্যক্তিগত মন্তব্য নিয়ে কথা বলতে চাই না। কারও ব্যক্তিগত ভাবনাতে ঐক্যফন্টে ফাটল ধরবে না বলে সাফ জানিয়ে দেন তিনি।

Leave A Reply

Your email address will not be published.