ভালোবাসা দিবসে ৭ বিষয়ে সাবধান থাকবেন!

বছর ঘুরে আবারও দুয়ারে কড়া নাড়ছে বিশ্ব ভালোবাসা দিবস। গোটা বিশ্বের মতো বাংলাদেশেও তরুণ-তরুণীরা, প্রেমিক-প্রেমিকারা এই দিনটিকে নিজেদের সম্পর্কের স্বীকৃতির দিন বলে পালন করে।

কিন্তু যে মানুষটির সঙ্গে আপনার ভালোবাসার সম্পর্ক এই ভালোবাসা দিবসে তার জন্য আপনি কি করবেন? তাকে কি উপহার দেবেন? তাকে নিয়ে কোথায় কোথায় ঘুরবেন? এইসব প্রশ্নের উত্তরগুলো নিশ্চয়ই আপনি গুছিয়ে রেখেছেন।

তারপরও এই ভালোবাসা দিবসে কিছু সাবধানতা অবশ্যই মেনে চলা উচিত। আসুন পাঠক জেনে নিই এই দিনটি নিয়ে ৭টি টিপস:

১. আপনি স্পষ্টভাষি হলেও কিছু কথা নিজের মধ্যে গোপন রাখুন। একটু সময় নিন। পরিস্থিতি বুঝে মনের মানুষের সঙ্গে মনের কথা শেয়ার করুন। হুট করে যেকোনও কথা বলা যাবে না কিন্তু!

২. দুজনের দেখা হওয়ার সময় তৃতীয় কারও উপস্থিতি থাকা ভালো। কাছের বন্ধু অথবা বান্ধবীকে সঙ্গে রাখতে পারেন। তবে প্রেমিকার কাছে দলবল নিয়ে যাওয়া যাবে না। তাতে হিতে বিপরীতই হবে। তাই প্রথম অবস্থায় বড়জোর একজনকে সঙ্গে রাখুন। পরে না হয় একান্তে দুজনে মনের কথা বলুন।

৩. আজকাল সেলফি ভাইরাসে আক্রান্ত গোটা দুনিয়া। তাই বলে সম্পর্কের শুরুতেই প্রিয়জনের সঙ্গে সেলফি তুলতে মরিয়া হওয়া যাবে না। আর সেলফি তুললেও তা আপলোড করতে কিছুটা সময় নিন। তাতে নিজের আত্মসম্মান বজায় থাকবে।

৪. নিশ্চিতভাবেই এই দিনটিতে ভালোবাসার মানুষকে নিয়ে ঘুরাঘুরির ফাঁকে কিছু না কিছু খাওয়াও হবে। সেই ক্ষেত্রে পকেটের অবস্থা মাথায় রাখুন। সামর্থ্য অনুযায়ী রেস্টুরেন্টে যান। কারণ বিশেষ এই দিনে দোকানিরা খাবারের দাম এমনিতেই বেশি রাখে।

৫. প্রতিশ্রুতি ভালোবাসার ক্ষেত্রে অনেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হলেও ভালোবাসা দিবসে আবেগে প্রেমিকাকে হুট করে কোনও প্রতিশ্রুতি দিবেন না।

৬. খালি হাতে ভালোবাসা দিবসে প্রিয়জনের সামনে যাবেন না কিন্তু। যাই হোক, কিছু একটা গিফট সঙ্গে নিয়ে যান। মনে রাখবেন- প্রিয়জনের কাছ থেকে বিশেষ দিনে সবাই গিফট প্রত্যাশা করে।

৭. আশপাশের লোকদের দিকে সতর্ক থাকুন। কেউ যেন গোপনে আপনাদের একান্ত মুহূর্তের ছবি তুলে আপনাকে ব্ল্যাকমেইল করতে না পারে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.